বুধবার ৭ই ডিসেম্বর, ২০২২ ইং ২৩শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

হ্যান্ডকাফ না পরিয়ে পুলিশ দায়িত্বহীনতার পরিচয় দিয়েছে : ঢাবি অধ্যাপক

আকাশবার্তা ডেস্ক : 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক শেখ হাফিজুর রহমান কার্জন বলেছেন, আজকে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত ২ আসামীকে যেভাবে আদালতে নেয়া হলো বিষয়টি পুরোই প্রশ্নবোধক। কারণ একজন চোর ডাকাতকেও আদালতে উঠানোর সময় তার কোমরের দড়ি হাতে হ্যান্ডকাফ পরানো থাকে। কিন্তু বিস্ময়কর হলো বাংলাদেশের খুবই স্পর্শকাতর একটি মামলায় ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত দুই জঙ্গিকে আদালতে উঠানো হলো তাদের শুধু কোমরে দড়ি ছিলো। হাতে হ্যান্ডকাফ কিংবা ডান্ডাবেরি পড়ানো ছিল না এটি সম্পূর্ণ দায়িত্বহীনতার পরিচয় দিয়েছেন।

রবিবার (২০ নভেম্বর) এক প্রশ্নরে জবাবে আমার সংবাদকে এই কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, তাছাড়া রায়সাবাজারের ওই এলাকাটি সব সময় জ্যাম থাকে এই অল্প সময়ের মধ্যে জঙ্গীরা কিভাবে উধাও হয়ে গেল এটিও ভাবনার বিষয় ।তাই এটির সাথে যারা জড়িত ছিল তাদেরকে জবাবদিহিতার আওতায় আনতে হবে যাতে ভবিষ্যতে এ ধরনের ঘটনা না হয়।

ধরিয়ে দিলে ২০ লাখ টাকা পুরস্কার: ঢাকার নিম্ন আদালতে পুলিশের কাছ থেকে ছিনিয়ে নেওয়া দুই জঙ্গিকে ধরিয়ে দিতে ১০ লাখ করে ২০ লাখ টাকা পুরস্কার ঘোষণা করেছে সরকার। পুলিশ সদর দপ্তর এ তথ্য জানিয়েছে। এছাড়া স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, দুই জঙ্গিকে ধরিয়ে দিতে পারলে ১০ লাখ টাকা করে মোট ২০ লাখ পুরস্কার দেওয়া হবে। তিনি বলেন, ‘আমি ও আইনমন্ত্রী একসঙ্গে বসে বলে দিয়েছিলাম, মৃত্যুদণ্ড পাওয়া আসামিদের আদালতে আনতে হবে না; যেহেতু তাদের ফাঁসির আদেশ হয়েই গেছে। এই আদেশ কেন মানা হলো না, তা খতিয়ে দেখা হবে।’

রাজধানীতে রেড অ্যালার্ট জারি: ঢাকার সন্ত্রাস দমন ট্রাইব্যুনাল থেকে ছিনিয়ে নেওয়া দুই জঙ্গিকে গ্রেপ্তারে রাজধানীতে রেড অ্যালার্ট জারি করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)। ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের উপকমিশনার (ডিসি) ফারুক হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

প্রসঙ্গ, রোববার (২০ নভেম্বর) দুপুর ১টা ৪০ মিনিটের দিকে সন্ত্রাসবিরোধী ট্রাইবুনাল থেকে নামার সময় সিঁড়ি থেকে প্রকাশক দীপন হত্যা মামলার মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই আসামি ও জেএমবি সদস্য আবু সিদ্দিক ও মইনুলকে ঢাকার আদালতের সামনে থেকে ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়েছে অন্য জঙ্গিরা।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের ৩১ অক্টোবর রাজধানীর শাহবাগে আজিজ সুপার মার্কেটের নিজ অফিসে খুন হন ফয়সাল আরেফিন দীপন। ওইদিন বিকালে তার স্ত্রী শাহবাগ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ২০১৮ সালের ১৫ নভেম্বর সন্ত্রাসবিরোধী আইনে অভিযোগপত্র দাখিল করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি দক্ষিণের সহকারী পুলিশ কমিশনার ফজলুর রহমান। এই মামলায় বহিষ্কৃত মেজর সৈয়দ জিয়াউল হক জিয়াসহ ৮ আসামির মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়েছে।

     এই বিভাগের আরও সংবাদ

আর্কাইভ

ডিসেম্বর ২০২২
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« নভেম্বর    
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১